শরীর দেখাতে দ্বিধা করি না।

0
314

 

আমার একটি আবেদনময়ী শরীর আছে। আমি সেটা দেখাতে দ্বিধা করি না। এমনই মন্তব্য করেছেন বলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াংকা চোপড়ার ফার্স্ট কাজিন বার্বি হান্দা। তবে নিজেকে আরও জনপ্রিয় করতে নামটাও পরিবর্তন করে ফেলেছেন তিনি। নতুন নাম রেখেছেন মানারা। জানিয়েছেন, তিনি মাধুরী দীক্ষিতের ভীষণ ভক্ত। তাই তার নামের আদ্যাক্ষর অনুসারে নতুন এ নাম ব্যবহার করেছেন। তার প্রথম ছবি ‘জিদ’, প্রযোজনা করছেন অনুভব সিনহা। তিনিই বার্বিকে নাম পরিবর্তনে উৎসাহিত করেন। নাম পরিবর্তনের কারণ সমপর্কে সিনহা বলেন, বার্বি বাচ্চাদের নাম! এটা বড় হওয়া মেয়েদের জন্য মানানসই নয়। তাকে নতুন যে নাম দেয়া হয়েছে তা পছন্দও করেছেন বার্বি। তিনি বলেছেন, এটি একটি গ্রিক শব্দ। যার অর্থ উজ্জ্বল করে এমন কিছু। পরিবারের সবাই এখন অনুমতি দিয়েছে নাম পাল্টানোর বিষয়ে। মানারা ব্যবসা প্রশাসন নিয়ে একটি ব্যাচেলর ডিগ্রিধারী। এছাড়া, ফ্যাশন ডিজাইনিং-এ কোর্স করেছেন তিনি।
স্বীকার করেন যে, প্রিয়াংকা চোপড়ার কাজিন হিসেবে বলিউডে আলাদা খাতিরও পাচ্ছেন। তিনি বলেন, আমি বলিউডের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ পাচ্ছি। ঠিক লোকের সঙ্গে কথা বলতে পারছি। তবে একই সঙ্গে বললেন, ‘জিদ’ ছবিতে অংশ নেয়ার জন্য তাকে ৫ স্তরের একটি অডিশনের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছিল।
ছবির পোস্টারে তার সমপূর্ণ আবেদনময়ী রূপই ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। এ সমপর্কে তিনি বলেন, এটা ২০১৪ সাল। আমি যদি আমার গোটা শরীর আবৃত করতে চাই, তাহলে আমাকে ‘সাস-বহু’ সিরিয়ালে কাজ করতে হবে। আমার একটি আবেদনময়ী শরীর আছে, আমি সেটা দেখাতে দ্বিধা করি না। পোস্টার সমপর্কে প্রিয়াংকার প্রতিক্রিয়া কি? এ সমপর্কে তিনি বললেন, পোস্টার ধারণের আগে আমি প্রিয়াংকাকে ফোন দিয়েছিলাম। তখন সে একটি ফিল্মের শ্যুটিং-এর জন্য বার্সেলোনায় ছিল। সে আমাকে জানালো, চালিয়ে যেতে। তবে বললেন, এটা যাতে সুন্দর দেখায়। নোংরা বা সস্তা যেন না হয়। আমি তার পরামর্শ গ্রহণ করলাম। এখন অনেকেই প্রশংসা করছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here